বুধবার ২৭ জানুয়ারি ২০২১ খ্রিস্টাব্দ | ১৪ মাঘ ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

Weekly Bangladesh নিউইয়র্ক থেকে প্রকাশিত
নিউইয়র্ক থেকে প্রকাশিত

ক্রিসমাসের আগে কি ১,২০০ ডলারের স্টিমুলাস চেক পাওয়া যাবে?

বাংলাদেশ রিপোর্ট :   |   বৃহস্পতিবার, ২৬ নভেম্বর ২০২০

ক্রিসমাসের আগে কি ১,২০০ ডলারের স্টিমুলাস চেক পাওয়া যাবে?

আমেরিকানরা বলছে সরকার যদি তাদেরকে আসন্ন হলিডে সিজনের আগে প্রতিশ্রুত ১,২০০ ডলারের কোভিড সহায়তা প্রদান করতো তাহলে তাদের পক্ষে আরো ভালোভাবে হলিডে অর্থ্যাৎ ক্রিসমাস উদযাপন করা সম্ভব হতো। এই জনআকাঙ্ক্ষার সাথে সামঞ্জস্য রেখেই গত সোমবার ১২৫ জন অর্থনীতিবিদ এক খোলা চিঠিতে মাহমারী পরিস্থিতিতে সংকট উত্তরণের জন্য সরকারের প্রতি আহবান জানিয়েছেন সরাসরি সহায়তার পরিমাণ আরো বৃদ্ধি করার জন্য। একই সাথে তারা প্রশ্ন করেছেন, ওয়াশিংটন কি ক্রিসমাসের আগে স্টিমুলাসের আকারে এই নগদ অর্থ পাঠাবে?

কংগ্রেসনাল নেতারা, নবনির্বাচিত প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন এবং বিদায়ী প্রেসিডেন্ট ডেনাল্ড ট্রাম্প সবাই বলছেন যে তারা একযোগে যথাসম্ভব দ্রুততার সাথে ষ্টিমুলাস চেক পাঠানোর উদ্যোগ নেবেন। কিন্তু কেউ এ সম্পর্কে বিস্তারিত কোনকিছু সামনে আনছেন না। ফ্র্যাঙ্কলিন টেম্পলটন-গ্যালাপ সার্ভে তাদের জরিপে প্রকাশ করেছে যে, ক্রিসমাস সিজনে ১৬ শতাংশ আমেরিকান কেনাকাটায় যে অর্থ ব্যয় করার পরিকল্পনা করেছে ১,২০০ ডলারের সরকারি সহায়তা পেলে তাদের সংখ্যা ২২ শতাংশে উন্নীত হবে। ৩৭ শতাংশ আমেরিকান স্বল্প পরিমাণে ব্যয় করার চিন্তাভাবনা করছে, ষ্টিমুলাস চেক পেলে সেই সংখ্যা ৩০ শতাংশে নেমে আসবে। চলতি সপ্তাহের শুরুতে প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প এক টুইট বার্তায় বলেছেন, কংগ্রেসকে অবশ্যই একটি কোভিড রিলিফ বিলের উপর কাজ করা উচিত এবং এজন্য ডেমোক্রেটদের সমর্থন প্রয়োজন। এটি বড় আকারের হোক। ট্রেজারি সেক্রেটারী গত শুক্রবার সিএনবিসিকে বলেছেন, রিপাবলিকানরা বিরোধী দলের সাথে শিগগির বসতে আগ্রহী, যারা মানুষের প্রকৃত প্রয়োজন নিয়ে ব্যাপক আকারের একটি বিল নিয়ে কার্যকর আলোচনা করবে। নির্বাচনের আগে তিনি প্রায় প্রতিদিন হাউজ স্পিকার ন্যান্সি পেলোসির সাথে এ সম্পর্কে আলোচনা করেছেন কিন্তু তা ফলপ্রসু হয়নি। হোয়াইট হাউজের আগের প্রস্তাবে ষ্টিমুলাস চেকে অর্থের পরিমাণ বাড়িয়ে দেয়ার কথা বলা হয়েছিল এবং ডেমোক্রেটরা এ ধরনের প্রস্তাব সমর্থন করবে বলে সম্মত হয়েছিল।

অর্থনীতিবিদরা যে বিবৃতি দিযেছেন তাতে তারা বলেছেন যে ষ্টিমুলাস চেক হওয়া উচিত দ্রুততর, অধিকতর সমানুপাতিক ও পরিবারের পক্ষে যাতে তা সহজপ্রাপ্য হয। তাহলেই তা অর্থনীতিকে সচল করতে গতি আনবে। ফেডারেল সরকার প্রথম দফা আর্থিক সহায়তা প্রদানের পর সাত মাস কেটে গেছে। ব্যুরো অফ লেবার ষ্ট্যাটিসটিকস এর হিসাব মতে প্রায় ৬০ শতাংশ আমেরিকান তাদের প্রথম ষ্টিমুলাস চেক ব্যবহার করেছে নিত্যপ্রয়োজনীয় খাদ্যসামগ্রী কিনতে ও ইউটিলিটি বিল পরিশোধ করতে। তবে কিছু সংখ্যক প্রাপ্ত ষ্টিমুলাস চেকের অর্থ বিনিয়োগ করেছে বা সুনির্দিষ্ট কোন কাজে ব্যয় করেনি এমন লোকও আছে তারা হয়তো এফোর্ডেবল লাইফ ইন্সুরেন্স পলিসি কিনেছে। কারণ মহামারীর কারণে বহু ব্যবসায়ে মন্দা দেখা দিলেও লাইফ ইন্স্যুরেন্স ব্যবসা এখন চাঙা হয়ে উঠেছে।

কিন্তু রিপাবলিকান ও ডেমোক্রেটরা পরবর্তী ষ্টিমুলাস চেক দেয়ার ব্যাপারে বেশ কিছু বিষয়ে মতৈক্যে পৌছতে পারছে না। এর মধ্যে রয়েছে ষ্টিমুলাসের আকার ও আওতা। জো বাইডেন এবং অন্যান্য ডেমোক্রেটরা মনে করেন মহামারীর কারণে আমেরিকানদের ব্যক্তিগত ও পারিবারিক পর্যায়ে আয়শূন্যতা সৃষ্টি হওয়া ছাড়া অন্যান্য সকল ক্ষেত্রে মহামারীজনিত ক্ষয়ক্ষতির কারণে ভর্তুকি দেয়ার জন্য সরকারকে অন্তত ২.২ ট্রিলিয়ন ডলার ব্যয় করা প্রয়োজন। কিন্তু রিপাবলিকানরা ৫০০ বিলিয়ন ডলারের উর্ধে বরাদ্দ করতে সম্মত নয়। নবনির্বাচিত প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন চেষ্টা করছেন যাতে অর্থনীতি আরো শোচনীয় অবস্থার দিকে যাওয়ার আগেই আমেরিকানদের আর্থিক সহায়তা দানের বিষয় নিস্পত্তি করা সম্ভব হয়। তিনি অবশ্য একথাও বলেছেন যে ট্রাম্প হোয়াইট হাউজ ত্যাগ করা মাত্রই রিপাবলিকানরা ডেমোক্রেটদের সাথে একমত হবেন।

আশা করা হচ্ছে যে, থ্যাঙ্কসগিভিং এর ছুটির পর ষ্টিমুলাস চেক নিয়ে উদ্ভুত সংকট কেটে যেতে পারে। এর মধ্যে যদি নতুন সরাসরি ষ্টিমুলাস চেক দেয়ার কথা থাকে তাহলে আমেরিকানরা তা ডিসেম্বরের শেষ দিক থেকে তারা তা পেতে শুরু করবে। কিন্তু আলোচনা যদি ব্যর্থ হয় তাহলে হয়তো জানুয়ারীতে নতুন কংগ্রেস ও নতুন প্রশাসনের আগমণ পর্যন্ত অপেক্ষা করার প্রয়োজন পড়তে পারে, সেক্ষেত্রে ফেব্রুয়ারীর আগে কোন ষ্টিমুলাস চেক পাওয়ার আশা নেই।

বিল পাসের জরুরি আহ্বান বাইডেনের : করোনাভাইরাস মহামারিতে আর্থিক সংকটেপড়া মার্কিনিদের জন্য দ্রুত ‘করোনা সাহায্য বিল’ পাসের জরুরি আহ্বান জানিয়েছেন যুক্তরাষ্ট্রের ৪৬তম প্রেসিডেন্ট শপথ নিতে যাওয়া ডেমোক্র্যাট প্রার্থী জো বাইডেন। নিজের ৭৮তম জন্মদিনের শুভেচ্ছা বিনিময়কালে মার্কিন কংগ্রেসের প্রতি এ আহ্বান জানান তিনি।জো বাইডেনের জন্মদিন উপলক্ষে স্বাস্থ্যবিধি মেনেই গত ২০ নভেম্বর ডেলাওয়ার স্টেটের উইলমিংটন সিটিতে জড়ো হন ডেমোক্র্যাটিক পার্টির শীর্ষ নেতারা। কংগ্রেসের নিম্নকক্ষ প্রতিনিধি পরিষদের স্পিকার ন্যান্সি পেলোসি এবং ইউএস সিনেটে সংখ্যালঘিষ্ঠ দলের নেতা সিনেটর চাক শুমারও সেখানে উপস্থিত ছিলেন। এ আসরে অন্যতম আকর্ষণ ছিলেন যুক্তরাষ্ট্রের প্রথম নারী ভাইস প্রেসিডেন্ট হতে যাওয়া কমলা হ্যারিস।

বিভিন্ন বিষয়ে আলোচনা করতে গিয়ে বাইডেন প্রথমেই করোনাভাইরাস পরিস্থিতির বিষয়ে তুলে ধরেন। দেশে ফের করোনার প্রকোপ বাড়ায় তিনি গভীর উদ্বেগ প্রকাশ করেন। বলেন, মানুষের বেকারত্ব ঘোঁচেনি, দ্রুত আমাদের কিছু করা দরকার। এ সময় মার্কিন কংগ্রেসের প্রতি তিনি আহ্বান জানান, যেন দ্রুত করোনা সাহায্য বিল পাস করে। এ বিল নিয়ে রিপাবলিকানদের সাথে যতটা সম্ভব সমঝোতার ইঙ্গিতও দেন বাইডেন।জো বাইডেন বলেন, ‘মানুষজন যদি কষ্টেই থাকে, তাহলে আমাদের বিজয়ের সন্তুষ্টিও বিবর্ণ হবে। তাই সবকিছুর উপরে ঠাঁই দিতে হবে আমেরিকার অর্থনীতি পুনরুদ্ধারের পদক্ষেপকে।’

Facebook Comments

Posted ৯:৫১ পূর্বাহ্ণ | বৃহস্পতিবার, ২৬ নভেম্বর ২০২০

Weekly Bangladesh |

এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

advertisement
advertisement
advertisement

আর্কাইভ

সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
 
১০
১১১২১৩১৪১৫১৬১৭
১৮১৯২০২১২২২৩২৪
২৫২৬২৭২৮২৯৩০৩১
Dr. Mohammed Wazed A Khan, President & Editor
Anwar Hossain Manju, Advisor, Editorial Board
Corporate Office

85-59 168 Street, Jamaica, NY 11432

Tel: 718-523-6299 Fax: 718-206-2579

E-mail: [email protected]

Web: weeklybangladeshusa.com

Facebook: fb/weeklybangladeshusa.com

Mohammed Dinaj Khan,
Vice President
Florida Office

1610 NW 3rd Street
Deerfield Beach, FL 33442

Jackson Heights Office

37-55, 72 Street, Jackson Heights, NY 11372, Tel: 718-255-1158

Published by News Bangladesh Inc.