বুধবার ২৩ জুন ২০২১ খ্রিস্টাব্দ | ৯ আষাঢ় ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

Weekly Bangladesh নিউইয়র্ক থেকে প্রকাশিত
নিউইয়র্ক থেকে প্রকাশিত

বাইডেন যুগের সূচনা

সম্পাদকীয়   |   বৃহস্পতিবার, ২১ জানুয়ারি ২০২১

বাইডেন যুগের সূচনা

যুক্তরাষ্ট্রের ইতিহাস থেকে অবসান হলো একটি কালো অধ্যায়ের । অসম্মানজনক বিদায় বরণ করলেন ট্রাম্প। গণতন্ত্রের পুর্ণজয়ের মধ্য দিয়ে অভিষিক্ত হলেন নবনির্বাচিত প্রেসিডেন্ট জো-বাইডেন। ট্রাম্পের উগ্র সমর্থকদের ক্যাপিটল হিল দখলের ব্যর্থ প্রয়াসের পর থমকে যায় গোটা দেশ। সর্বত্র বিরাজ করে শ্বাসরুদ্ধকর অবস্থা। বাইডেনের অভিষেক জনমনে ফিরিয়ে দিয়েছে স্বস্থি। প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনের সাথে একইসময় শপথ নিয়েছেন ভাইস প্রেসিডেন্ট কামালা হ্যারিস। অভিষেক অনুষ্ঠানে অংশ নেননি ইতিহাসের খল নায়ক ডোনাল্ড ট্রাম্প। সপরিবারে তিনি পাড়ি জমিয়েছেন ফ্লোরিডা।

তার চিরচেনা ও আবাসস্থল নিউইয়র্কে ফেরার সাহস করেননি তিনি। রাজধানী ওয়াশিংটন ডিসি হাঁপিয়ে উঠেছিলো এই অপশাসকের পদভারে। ট্রাম্প তার চার বছরের শাসনামলে ধ্বংস করে দিয়েছেন যুক্তরাষ্ট্রের ২৩২ বছরের ইতিহাস ঐতিহ্য । সংবিধান, গণতন্ত্র, আইনের শাসন ও বিচার বিভাগের প্রতি প্রদর্শন করেছেন চরম অসম্মান। প্রশাসন, আইন ও বিচার বিভাগের মাঝে সৃষ্টি করেছেন ভারসাম্যহীনতা। জাতিকে কার্যত দ্বিধা বিভক্ত করেছেন ট্রাম্প । উসকে দিয়েছেন বর্ণবাদ। দেশের আভ্যন্তরীন অর্থনীতিকে দাঁড় করিয়েছেন ধ্বংসের দ্বারপ্রান্তে। বৈশ্বিক মহামারি করোনায় প্রাণহানি ঘটেছে চার লক্ষাধিক মানুষের। অথচ এই মহামারির শুরুতে প্রতিরোধমূলক ব্যবস্থা গ্রহণে তার ছিলো প্রচন্ড অনিহা। উল্টো করোনা নিয়ে তিনি করেছেন ব্যঙ্গ বাহাস। ‘প্যাথলজিক্যাল লায়ার’ হিসেবে তার কুখ্যাতি ছড়িয়ে পড়েছে বিশ্বজুড়ে।

অরাজনৈতিক এ ব্যক্তিত্ব নিজ এবং পরিবারের স্বার্থকে অগ্রাধিকার দিয়েছেন বরাবর। সংবাদ মাধ্যমকে টুটি চেপে ধরার হেন কোন প্রয়াস নেই যা তিনি নেননি। হোয়াইট হাউজে তার পুরো সময়কালে চলছিলো অস্থিরতা। গত ৩ নভেম্বরের নির্বাচনে হেরে গিয়েও ক্ষমতায় আঁকড়ে থাকতে চান গায়ের জোড়ে । ভোট কারচুপির মিথ্যে অভিযোগে অর্ধশতাধিক মামলা করে হেরে যান তিনি। অন্যায়ভাবে নির্বাচনের ফলাফল পাল্টে দেয়ার পরামর্শ দেন রাজ্য কর্মকর্তাদের। নির্বাচনের ফলাফল তার অনুকূলে নিতে ব্যর্থ হয়ে উগ্র সমর্থকদের উসকে দেন ক্যাপিটল হিল দখল করতে। নজিরবিহ্রীন এ ধ্বংসাত্মক ঘটনায় প্রাণহানি ঘটে পাঁচজনের। গৃহযুদ্ধের পর দেশ ও জাতি এতো বড় বিপর্যয়ের মুখে পড়েনি কখনো। জো বাইডেনের ২০ জানুয়ারির শপথ, গ্রহণ অনুষ্ঠান পন্ড করারও ছক আটেন ট্রাম্প। শেষ পর্যন্ত কোন কিছুতেই কাজ হয়নি। সকল সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম বর্জন করেছে ট্রাম্পকে। তারপরও কঠোর নিরাপত্তা ব্যবস্থায় অনুষ্ঠিত হয়েছে জো বাইডেনের অভিষেক। যেখানে অংশ নেন উভয় দলের জনপ্রতিনিধিগণ । সুপ্রীম কোর্টের প্রধান বিচারপতি জন রবার্টস পরিচালনা করেছেন এক মিনিটের শপথ গ্রহণ অনুষ্ঠান। জো বাইডেন এখন যুক্তরাষ্ট্রের ৪৬তম প্রেসিডেন্ট।

যুক্তরাষ্ট্রের রাজনৈতিক, সামাজিক, অর্থনৈতিক বিপর্যয়কালে প্রেসিডেন্টের দায়িত্বভার গ্রহণ করেছেন বাইডেন। অভিষেক ভাষণে সকল রাজনৈতিক বিভেদ বিভ্রান্তি ভুলে জাতিকে ঐক্যবদ্ধ করার আহ্বান জানিয়েছেন তিনি। জাতিকে ঐক্যবদ্ধ করাই হবে তার জন্য বড় চ্যালেঞ্জ। যুক্তরাষ্ট্রের সবচেয়ে বয়স্ক এবং ধৈর্য্যশীল প্রেসিডেন্ট হিসেবে বাইডেন সমস্যাটি কাটিয়ে উঠবেন বলেই দেশবাসীর দৃঢ় বিশ্বাস। নানাবিধ প্রতিকূলতার মধ্যেও বাইডেন সম্পন্ন করেছেন তার মন্ত্রীসভার সদস্য এবং প্রশাসনের গুরুত্বপূর্ণ পদে নিয়োগ প্রদান । গুছিয়ে এনেছেন অনেককিছু। দায়িত্ব গ্রহণের প্রথম দশদিন ঐতিহাসিক যে সব সিদ্ধান্ত নিবেন তা নির্ধারণ করেছেন ইতোমধ্যেই। প্রেসিডেন্ট বাইডেন দেশের নাগরিকদের জন্য ঘোষণা করেছেন তৃতীয় স্টিমুলাস প্যাকেজ। করোনার বেকার হওয়া এবং গৃহহীন মানুষদের সহায়তায় ঘোষণা করেছেন ১লাখ ৯০হাজার কোটি ডলারের বাজেট ।

করোনা ভ্যাকসিন এবং আনুসাঙ্গিক অন্যান্য সরঞ্জামাদি উৎপাদন ও সরবরাহের জন্য গ্রহণ করেছেন ব্যাপক পরিকল্পনা। দ্রুততম সময়ে সবমানুষের কাছে ভ্যাকসিন পৌছে দিতে চান তিনি। এজন্য জারি করেছেন প্রয়োজনীয় নির্দেশনা । মহামারি রোধে বিশেষজ্ঞ চিকিৎসককে নিয়োগ দিয়েছেন নিজ পরামর্শক হিসেবে। ট্রাম্পের শাসনকালে আরোপিত অনেক নিষেধাজ্ঞা ও জনস্বার্থ বিরোধী আইন নির্বাহী আদেশে বাতিল করছেন প্রথম দিনেই। বিশেষ করে ৭টি মুসলিম দেশের নাগরিকদের যুক্তরাষ্ট্রে প্রবেশের বিষয়টি । এছাড়া দীর্ঘ দিন ধরে ঝুলে থাকা অমীমাসিংত ইমিগ্রেশন সমস্যাগুলো তিনি দ্রুত সমাধানে আগ্রহী বলে ঘোষণা দিয়েছেন। সবকিছু মিলিয়ে বাইডেন ট্রাম্পের কালো আইন বাতিল করে জন কল্যাণমূলক আইন প্রবর্তন করবেন। সকল চ্যালেঞ্জ মোকাবিলা করে দেশ ও জাতিকে এগিয়ে নিয়ে যাবেন। আমেরিকাকে ফিরিয়ে নিয়ে যাবেন পুর্বাবস্থায়। প্রশাসন, আইন ও বিচার বিভাগে প্রতিষ্ঠিত হবে ভারসাম্যতা। নিশ্চিত হবে জনগণের অধিকার। ঐক্যবদ্ধ জাতি হিসেবে আমেরিকার অবস্থান হবে বিশ্বে নাম্বার ওয়ান। জো-বাইডেন ও কামালা হ্যারিসকে আমাদের অভিনন্দন।

Facebook Comments Box

Posted ৯:৪৩ পূর্বাহ্ণ | বৃহস্পতিবার, ২১ জানুয়ারি ২০২১

Weekly Bangladesh |

এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদকীয়
সম্পাদকীয়

(786 বার পঠিত)

সম্পাদকীয়
সম্পাদকীয়

(517 বার পঠিত)

সম্পাদকীয়
সম্পাদকীয়

(330 বার পঠিত)

সম্পাদকীয়

(309 বার পঠিত)

সম্পাদকীয়

(291 বার পঠিত)

বিদায় ২০২০ সাল
বিদায় ২০২০ সাল

(280 বার পঠিত)

সম্পাদকীয়

(277 বার পঠিত)

advertisement
advertisement
advertisement

আর্কাইভ

সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
 
১০১১১২১৩
১৪১৫১৬১৭১৮১৯২০
২১২২২৩২৪২৫২৬২৭
২৮২৯৩০  
Dr. Mohammed Wazed A Khan, President & Editor
Anwar Hossain Manju, Advisor, Editorial Board
Corporate Office

85-59 168 Street, Jamaica, NY 11432

Tel: 718-523-6299 Fax: 718-206-2579

E-mail: weeklybangladesh@yahoo.com

Web: weeklybangladeshusa.com

Facebook: fb/weeklybangladeshusa.com

Mohammed Dinaj Khan,
Vice President
Florida Office

1610 NW 3rd Street
Deerfield Beach, FL 33442

Jackson Heights Office

37-55, 72 Street, Jackson Heights, NY 11372, Tel: 718-255-1158

Published by News Bangladesh Inc.