শুক্রবার ২২ অক্টোবর ২০২১ | ৬ কার্তিক ১৪২৮

Weekly Bangladesh নিউইয়র্ক থেকে প্রকাশিত
নিউইয়র্ক থেকে প্রকাশিত
অতিরিক্ত ট্যাক্স রিফান্ড পাবেন ১০ মিলিয়ন আমেরিকান

বেকার ভাতার সুযোগ হারাবেন ২০ লাখ

বাংলাদেশ রিপোর্ট :   |   বৃহস্পতিবার, ২০ মে ২০২১

বেকার ভাতার সুযোগ হারাবেন ২০ লাখ

করোনা মহামারীকালে যুক্তরাষ্ট্রজুড়ে লকডাউনে বেকার হয়ে পড়ে প্রায় চার কোটি মানুষ। চরম আর্থিক সংকটে পড়ে মধ্য ও নিম্ন মধ্যবিত্ত শ্রেনি। ভয়াবহ এ মন্দা কাটাতে স্টেট ও ফেডারেল সরকার বাড়িয়ে দেয় আর্থিক সহায়তার হাত। স্টেটগুলো শুরু করে বেকার ভাতা প্রদান। এর সঙ্গে ফেডারেল সরকার প্রতি সপ্তাহে ৬০০ ডলার হারে দুর্যোগকালীন অতিরিক্ত অর্থ সহায়তা প্রদান করে। মহামারীর প্রকোপ কমে আসায় হ্রাস পায় অতিরিক্ত ভাতার পরিমাণ। এ সময়ে বেকার ভাতা সুবিধাভোগীদেরকে কাজে ফিরে যেতে উৎসাহিত করে সরকার। কিন্তু অনেকেই কাজে না ফিরে বেকার ভাতার প্রতি আকৃষ্ট হয়ে পড়েছে। এমতাবস্থায় বিভিন্ন স্টেট সরকার বেকার ভাতা প্রদান বন্ধ করার সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেছে। প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনও আমেরিকানদের আহবান জানিয়েছেন কাজে ফিরে যাওয়ার জন্য।

রিপাবলিকান নিয়ন্ত্রিত ১৮টি স্টেটের গভর্নররা সিদ্ধান্ত নিয়েছেন যে তারা তাদের স্টেট থেকে ঢালাওভাবে ফেডারেল আনএমপ্লয়মেন্ট বেনিফিট প্রদান বন্ধ করবেন। এর ফলে স্টেটগুলোর ২০ লাখের অধিক আমেরিকান আগামী সেপ্টেম্বর পর্যন্ত বর্ধিত ফেডারেল আর্থিক সুযোগ থেকে বঞ্চিত হতে যাচ্ছে। যদিও আশংকা করা হচ্ছে যে, বেনিফিট বন্ধ হয়ে গেলে অনেক মানুষ দারিদ্রের মধ্যে পড়বে। কিন্তু স্টেটগুলোর গভর্নররা বলছেন, সেপ্টেম্বর পর্যন্ত ফেডারেল আনএমপ্লয়মেন্ট বেনিফিট অব্যাহত রাখা হলে বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের নিয়োগকারীরা অভিযোগ করবেন যে কর্মীর অভাবে তারা তাদের শূন্য পদগুলো পূরণ করতে সক্ষম হচ্ছেন না এবং ইতোমধ্যে যেসব প্রতিষ্ঠান চালু হয়েছে সেখানে কর্মী সংকট রয়েছে। বেনিফিট অব্যাহত রাখার কারণেই এ সমস্যার সৃষ্টি হয়েছে।

গভর্নররা অবশ্য স্বীকার করেন যে মহামারীর কারণে সৃষ্ট অর্থনৈতিক সংকট থেকে দেশ এখনো উদ্ধার পায়নি। মানুষ সকলে তাদের কাজে ফিরে এলেই অর্থনীতিতে গতি ফিরে আসবে। মিসিসিপির গভর্নর টেট রীভস এক টুইটে বলেছেন, এটা স্পষ্ট স্টেটে শূন্য প্রতিটি পদ পূরণ না হওয়া পর্যন্ত অর্থনৈতিক পুনরুদ্ধার প্রক্রিয়া সম্পন্ন হবে না। রীভস এবং অন্য গভর্নররা ইঙ্গিত দিয়েছেন যে যুক্তরাষ্ট্রে বর্তমানে কর্মখালি রয়েছে ৮০ লাখের অধিক, ফেডারেল বেনিফিট চালু থাকলে সক্ষমদেহীরাও কাজে ফিরে আসতে চাইবে না। গত এপ্রিল মাসে ফেডারেল সরকার আশা করেছিল যে অন্তত ১০ লাখ কর্মী কাজে ফিরে আসবে, কিন্তু বাস্তবে ২ লাখ ৬৬ হাজার লোক কাজে ফিরেছে। ১৮ স্টেটের গভর্নররা দৃঢ় অবস্থান নিয়েছেন যে তারা সকল কর্মহীন মানুষের জন্য ৩০০ ডলারের সাপ্তাহিক ফেডারেল ভাতাসহ আনএমপ্লয়মেন্ট বেনিফিটের অবসান ঘটাবেন, এবং লোকজন কাজ খুঁজে পেতে আগ্রহী হয়ে উঠবে।

সিনেটর বার্নি স্যান্ডার্স এক বিবৃতিতে বলেছেন যে, আমেরিকায় কর্মীর অভাব নেই। কিন্তু যারা কাজ করবে তাদের সম্মানের সঙ্গে বসবাসের জন্য উপযুক্ত আর্থিক সুবিধা নিশ্চিত করার মত নিয়োগকারীর অভাব রয়েছে। কিছু শ্রম ও শ্রমিক বিশেষজ্ঞ সন্দিহান যে ফেডারেল আনএমপ্লয়মেন্ট বেনিফিট বন্ধ করা হলেই লোকজন কাজে যোগ দিতে ছুটে যাবে। এর পেছনে তারা দুটি কারণের উল্লেখ করেছেন, এবং তা হচ্ছে শিশু ও বয়স্কদের এখনো সেবার প্রয়োজন; অনেকে এখনো কাজে যেতে ভীত যে কর্মস্থলে তারা করোনা ভ্ইারাসে আক্রান্ত হতে পারে।

ইউএস ডিপার্টমেন্ট অফ লেবারের বরাত দিয়ে সেঞ্চুরি ফাউন্ডেশন ১৮টি রিপাবলিকান নিয়ন্ত্রিত স্টেটে আনএমপ্লয়মেন্ট বেনিফিট বন্ধ করার কার্যকর করার যে তারিখ দিয়েছে তা হচ্ছে: আলাবামা ১৯ জুন, আলাস্কা ১২ জুন, অ্যারিজোনা ১০ জুলাই, আরকানসাস ২৬ জুলাই, জর্জিয়া ২৭ জুলাই, আইডাহো ১৯ জুন, আইওয়া ১২ জুন, মিসিসিপি ১২ জুন, মিজৌরি ১২ জুন, মন্টানা ২৭ জুন, নর্থ ডাকোটা ১৯ জুন, ওহাইয়ো ২৬ জুন, নর্থ ক্যারোলিনা ২৭ জুন, সাউথ ডাকোটা ২৬ জুন, টেনেসি ৩ জুলাই, ইউতাহ ২৬ জুন, ওয়েস্ট ভার্জিনিয়া (তারিখ পাওয়া যায়নি) এবং ওয়োমিং ১৯ জুন। একই ছকে ১৮টি স্টেটের মধ্যে কোন স্টেটে কতজন কর্মীর ফেডারেল বেনিফিট বন্ধ করা হবে সেই সংখ্যাও দেয়া হচ্ছে। তালিকা অনুযাযী আলাবামায় ৭৯,৬৬৪ জন কর্মীর বেনিফিট বন্ধ হবে। এভাবে আলাস্কায় ৩৮,৬৮৬ জন, অ্যারিজোনায় ১৯০,৫১৮ জন, আরকানসাসে ৮০,৭১৩ জন, জর্জিয়ায় ২৬৮,৫৩১ জন, আইডাহোতে ১৮,৯৭৯ জন, আইওয়াতে ৬১,১৮৭ জন, মিসিসিপিতে ৯১,৬২৬ জন, মিজৌরিতে ১৪৭,৮৯০ জন, মন্টানায় ৩১,১০৮ জন, নর্থ ডাকোটায় ১৫,০৫৭ জন, ওহাইয়োতে ৫৯৪,৯৪৪ জন, সাউথ ক্যারোলিনায় ১৬৬,৪৩৬ জন, সাউথ ডাকোটায় ৫,০৫৯ জন, টেনেসিতে ১৬৬,০৭৩ জন, ইউতাহ’তে ২৬,৪২৫ জন, ওয়েস্ট ভার্জিনিয়ায় ৪৫,৭৮২ জন এবং ওয়োমিং এ ১০,৩১৫ জন লোকের ফেডারেল বেনিফিট বন্ধ হয়ে যাবে।

কাজে ফিরে আসতে উৎসাহী করার জন্য অ্যারিজোনা, মন্টানা ও ওহাইয়ো মাথাপিছু ২,০০০ ডলারের বোনাস ঘোষণা করেছে। এছাড়া চাইল্ড কেয়ারের জন্য পৃথক ভাতার ব্যবস্থাও থাকবে বলে জানান হয়েছে।

অতিরিক্ত ট্যাক্স রিফান্ড পাবেন ১০ মিলিয়ন আমেরিকান : এদিকে ইতোমধ্যে দাখিলকৃত ২০২০ সালের ট্যাক্স রিটার্ন দাখিলকারী আমেরিকান ও বৈধ ইমিগ্রান্টদের মধ্যে যারা আনএমপ্লয়মেন্ট বেনিফিট পাওয়ার কারণে অধিক পরিমাণে ট্যাক্স পরিশোধ করেছে তাদেরকে অতিরিক্ত ট্যাক্স রিফান্ড প্রদান করা হবে। আইআরএস এ ব্যাপারে নিবিড় পর্যালোচনার পর এ সপ্তাহ থেকেই রিফান্ড ইস্যু শুরু করতে পারে বলে জানা গেছে। আইআরএস গত শুক্রবার এক বিবৃতিতে জানিয়েছে যে, ২০২১ সালের মার্চ মাসে আমেরিকান রেসকিউ প্ল্যান আইনে পরিণত হওয়ার আগে ট্যাক্স রিটার্ন ফাইল করেছেন এমন ১০ মিলিয়ন রিটার্ন ফাইলকারীকে আইআরএস চিহ্নিত করেছে। তাদের ট্যাক্স রিটার্নগুলো পুনর্মূল্যায়ন করা হচ্ছে যে তারা তাদের করযোগ্য আয় ও আনএনপ্লয়মেন্ট বেনিফিটের ওপর অধিক পরিমাণে ট্যাক্স পরিশোধ করেছেন কিনা। যদি করে থাকেন তাহলে তারা অতিরিক্ত রিফান্ড লাভ করবেন। উল্লেখ্য, ১.৯ ট্রিলিয়ন ডলারের আমেরিকান রেসকিউ প্ল্যানের আওতায় আনএমপ্লয়মেন্ট বেনিফিটের প্রথম ১০,২০০ ডলার করযোগ্য নয়। যেহেতু আইনটি স্বাক্ষরিত হয়েছে ট্যাক্স সিজনের মাঝামাঝি সময়ে সেজন্য এটি অস্পষ্ট ছিল যে যারা ইতিমধ্যে ট্যাক্স রিটার্ন ফাইল করেছেন তাদের রিফান্ডের ক্ষেত্রে কি ঘটবে। আইআরএস অবশ্য তাদের আগের এক বিবৃতিতে জানিয়েছিল যে, যেসব বেকার ইতিমধ্যে রিটার্ন ফাইল করেছে, তাদের রিটার্ন সংশোধন করার প্রয়োজন নেই।

আইআরএস যাদেরকে অতিরিক্ত রিফান্ড প্রদান করবে, তাদের ব্যাংক একাউন্টে সরাসরি রিফান্ড পাঠিয়ে দেয়া হবে। যদি আইআরএস এর কাছে ব্যাংক একাউন্টের তথ্য না থাকে তাহলে তাদের বরাবরে রিফান্ডের চেক পাঠিয়ে দেয়া হবে। সেঞ্চুরি ফাউন্ডেশনের আনএমপ্লয়মেন্ট এক্সপার্ট ও সিনিয়র ফেলো এন্ড্রু স্টেটনার ধারণা করেছেন যারা অতিরিক্ত রিফান্ড পাওয়ার যোগ্য বিবেচিত হবেন তারা এক হাজার ডলার পর্যন্ত রিফান্ড পেতে পারেন অথবা তাদের একই পরিমাণের ট্যাক্স লায়াবিলিটি হ্রাস পাবে।

Posted ১১:৩২ পূর্বাহ্ণ | বৃহস্পতিবার, ২০ মে ২০২১

Weekly Bangladesh |

এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

advertisement
advertisement
advertisement

আর্কাইভ

সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
 
১০
১১১২১৩১৪১৫১৬১৭
১৮১৯২০২১২২২৩২৪
২৫২৬২৭২৮২৯৩০৩১
Dr. Mohammed Wazed A Khan, President & Editor
Anwar Hossain Manju, Advisor, Editorial Board
Corporate Office

85-59 168 Street, Jamaica, NY 11432

Tel: 718-523-6299 Fax: 718-206-2579

E-mail: weeklybangladesh@yahoo.com

Web: weeklybangladeshusa.com

Facebook: fb/weeklybangladeshusa.com

Mohammed Dinaj Khan,
Vice President
Florida Office

1610 NW 3rd Street
Deerfield Beach, FL 33442

Jackson Heights Office

37-55, 72 Street, Jackson Heights, NY 11372, Tel: 718-255-1158

Published by News Bangladesh Inc.